মরণ ফাঁদ যেন কুমারখালীর গড়ের মাঠ লোহার ব্রীজ

নিজস্ব প্রতিবেদক: কুষ্টিয়া জেলার কুমারখালী উপজেলার প্রাচীন সড়ক এর মধ্যে সাবেক “ডিষ্টিক বোর্ডের” এ সড়কটি অন্যতম। উপজেলা সদর থেকে গড়ের মাঠ, তারাপুর, গোপগ্রাম, আমলাবাড়ি, কালিতলা, হাবাসপুর, সেনগ্রাম হয়ে পাংশা, রাজবাড়ী পর্যন্ত এ সংযোগ সড়ক টি কুষ্টিয়া জেলার উত্তর পূর্ব অঞ্চলের মানুষের যাতায়াতের একমাত্র সড়ক।

সড়ক টির গড়ের মাঠ বিলের মধ্যে অবস্থিত বৃটিশ আমলে নির্মিত এ ব্রীজটির বেহাল দশা এখন চরমে। গত বছর খানেক আগে ঝুঁকি পূর্ণ সেতু ঘোষণা করে সাইনবোর্ড লাগিয়ে দেয় উপজেলা প্রকৌশলী। কিন্তু দীর্ঘদিন পার হয়ে গেলেও সেতুটি নতুন করে নির্মাণ না হওয়ায় চরম ঝুঁকিতে যাতায়াত করছে এ অঞ্চলের লক্ষ্যাধিক মানুষ।

যে কোন মুহুর্তে ঘটতে পারে বড় ধরনের কোনো অপ্রীতিকর ঘটনা। হয়তো তখন টনক নড়বে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের। গঠিত হবে তদন্ত কমিটি। যা হবার তাই হবে।

এ বিষয়ে আজ আমি কথা বলেছি কুমারখালী এল জি ই ডি’র প্রকৌশলী মোঃ আঃ রহিম সাহেবের সাথে, তিনি আমাকে জানিয়েছে খুব দ্রুত ব্রীজটির টেন্ডার হবে।

তবে এ কাজের জন্য ঠিকাদারের সংকট রয়েছে। তারপরও আমরা চেষ্টা করছি যত দ্রুত সম্ভব সেতুর নির্মাণ কাজ শুরু করার জন্য।
ভুক্তভোগীদের কথা বলেছি তারা আমাকে জানিয়েছে আমারা আর কোনো প্রতিশ্রুতি শুনতে চাই না, কোন অজুহাত শুনতে চাই না। আমরা দ্রুত বাস্তবায়ন চাই।

কুষ্টিয়ার সময়-আ.আ.হ/মৃধা

বিজ্ঞাপন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *