সরকারী নিষেধাজ্ঞা শেষে পদ্মায় চলছে ইলিশ ধরার উৎসব

কুষ্টিয়া প্রতিনিধিঃ ৩১ অক্টোবর শুক্রবার থেকে আবার শুরু হয়েছে টানা ৮ মাস জাটকা (১০ ইঞ্চি বা ২৫ সে.মি চেয়ে ছোট ইলিশ) নিধন ও ক্রয়-বিক্রয়ের ওপর নিষেধাজ্ঞা। প্রজনন মৌসুম হওয়ায় গত ৯ থেকে ৩০ অক্টোবর পর্যন্ত মোট ২২ দিন ইলিশ ধরা, পরিবহন, সংরক্ষণ ও বিক্রি নিষিদ্ধ ঘোষণা করে সরকার। সরকারী নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে কুষ্টিয়ার কুমারখালীতে ইলিশ শিকারের অপরাধে ৩৭ জেলের দন্ড হয়েছে জব্দ করা হয়েছে বিপুল পরিমাণ ইলিশ মাছ ও জাল। সিনিয়র উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা মোঃ রোকনুজ্জামান জানান, প্রতি বছরের মতো এ বছরও ইলিশের প্রধান প্রজনন মৌসুমে “মা ইলিশ রক্ষা করুন ইলিশ সম্পদ বৃদ্ধি করুন” এই শ্লোগানকে সামনে রেখে গেল ৯ অক্টোবর থেকে ৩০ অক্টোবর পর্যন্ত ২২ দিন ইলিশ মাছ ধরা, পরিবহন, খাওয়া ও মজুদ করা সরকার নিষেধাজ্ঞা আরোপ করা হয়েছিল।

নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে কেউ যেন ইলিশ মাছ শিকার না করতে পারে এই জন্য উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ রাজীবুল ইসলাম খান ও সহকারী কমিশনার (ভূমি) মোহাম্মদ নূর-এ-আলম মৎস্য অধিদপ্তরের সহযোগীতায় কয়া, শিলাইদহ, চরসাদীপুর ও জগন্নাথপুর ইউনিয়নের বিভিন্ন এলাকায় অভিযান চালিয়ে ৩৭ জনকে আটক করে মৎস্য আইনে ১০ টি মামলা দায়ের, ৩৭ জনকে বিভিন্ন মেয়াদে সাঁজা এবং ৯ হাজার টাকা জরিমানা আদায় করে। অভিযানে জব্দ করা হয় ২.৫৫০ লক্ষ মিটার জাল ও ৭০ কেজি ইলিশ মাছ।

(Visited 24 times, 1 visits today)

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *